রাজশাহী , বৃহস্পতিবার, ২০ জুন ২০২৪, ৫ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
নোটিশ :
পবিত্র ইদুল আযহা উপলক্ষে আগামী ১৬ জুন ২০২৪ থেকে ২১ জুন ২০২৪ তারিখ পর্যন্ত বাংলার জনপদের সকল কার্যক্রম বন্ধ থাকবে। ২২ জুন ২০২৪ তারিখ থেকে পুনরায় সকল কার্যক্রম চালু থাকবে। ***ধন্যবাদ**

ফের বাংলাদেশে ঢুকে গুলি চালাল বিএসএফ

  • আপডেটের সময় : ০৮:০৯:১৬ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৪ মে ২০২৪
  • ৪ টাইম ভিউ
Adds Banner_2024

জনপদ ডেস্ক: কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ী সীমান্তে বাংলাদেশের অভ্যন্তরে প্রবেশ করে গুলিবর্ষণ করেছে বিএসএফ। এতে অল্পের জন্য বেঁচে যান গৃহবধূ শাকিলা আক্তার ইতি। এ বিষয়ে বিজিবির তীব্র প্রতিবাদের মুখে দুই দেশের পতাকা বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়েছে। গুলিবর্ষণের ঘটনায় ওই সীমান্তে বিজিবি টহল জোরদার করেছে।

রোববার সন্ধ্যা ৬টার দিকে উপজেলার বালাতারীর ধুলারকুটি গ্রামের আন্তর্জাতিক নং-৯৩১ পিলারের কাছে এ ঘটনা ঘটে। এ ব্যাপারে সোমবার সন্ধ্যা ৬টায় বিজিবি ও বিএসএফের পতাকা বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়েছে। সিসিটিভির ফুটেজ পর্যালোচনাপূর্বক গুলিবর্ষণের ঘটনা জানাতে চেয়েছে বিজিবি।

Trulli

সীমান্তবাসী শাহালম ও আব্দুল কুদ্দুস জানান, সীমান্ত সংলগ্ন বাংলাদেশের জমিতে কেটে নেওয়া ধান গাছের অবশিষ্ট খড় সংগ্রহের জন্য রোববার বিকাল সাড়ে ৫টার দিকে কয়েকজন সীমান্তবাসী নারী নো-ম্যান্সল্যান্ডে যান। এ সময় ভারতীয় নারায়ণগঞ্জ ক্যাম্পের টহলরত এক বিএসএফ সদস্য তাদের ধাওয়া করে। খড় সংগ্রহে যাওয়া নারীরা দৌড়ে বাংলাদেশের ভূখণ্ডে প্রবেশ করলে ওই বিএসএফ সদস্যও তাদের পিছু নিয়ে প্রায় ৩০ গজ বাংলাদেশের ভিতরে প্রবেশ করে।

একপর্যায়ে রাইফেল উঁচিয়ে ওই নারীদের লক্ষ্য করে এক রাউন্ড গুলি করে দ্রুত ভারতের অভ্যন্তরে চলে যায় বিএসএফ সদস্য। সেই গুলি লক্ষ্যভ্রষ্ট হয়ে সীমান্ত ঘেঁষা নুর আলম বাচ্চুর বাড়ির রান্নাঘরের চাল ফুটো হয়ে মেঝেতে ছিটকে পড়ে।

গুলির শব্দে আশপাশের এলাকা প্রকম্পিত হলে সীমান্তবাসী আতঙ্কিত হয়ে ছোটাছুটি করতে থাকেন। পরে নুর আলম বাচ্চুর পুত্রবধূ শাকিলা আক্তার ইতি রান্নাঘরের মেঝে থেকে এক রাউন্ড তাজা গুলি উদ্ধার করেন। রাত ১১টার দিকে পার্শ্ববর্তী গোরকমণ্ডল ক্যাম্পের বিজিবির সদস্যরা ঘটনাস্থল থেকে উদ্ধারকৃত গুলি জব্দ করে ক্যাম্পে নিয়ে যান।

নুর আলম বাচ্চু জানান, ওই সময় আমার পুত্রবধূ রান্নাঘরেই ছিল। ভাগ্যিস গুলিটা তাকে লাগেনি। মাঝে মধ্যেই বিএসএফ এভাবে বাংলাদেশে ঢুকে নিরীহ গ্রামবাসী ওপর অত্যাচার চালায়।

লালমনিরহাট ১৫ বিজিবি ব্যাটালিয়নের ভারপ্রাপ্ত অধিনায়ক মেজর আসিফ জানান, সোমবার সন্ধ্যা ৬টায় ওই সীমান্তে কোম্পানি কমান্ডার পর্যায়ে পতাকা বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়েছে। বৈঠকে বিজিবির পক্ষে নেতৃত্ব দেন লালমনিরহাট ১৫ বিজিবি ব্যাটালিয়নের অধীন শিমুলবাড়ী কোম্পানি কমান্ডার সুবেদার নরেশ চন্দ্র এবং বিএসএফের পক্ষে নেতৃত্ব দেন ৯০ বিএসএফ ব্যাটালিয়নের নারায়ণগঞ্জ কোম্পানি কমান্ডার ইন্সপেক্টর রমন সিং।

বৈঠকে সীমান্তে বিনা উস্কানিতে গুলিবর্ষণের কারণ জানতে চেয়ে বিজিবি কড়া প্রতিবাদ জানালে বিএসএফ সীমান্তের সিসিটিভির ফুটেজ পর্যালোচনাপূর্বক মঙ্গলবার আবারো পতাকা বৈঠকের মাধ্যমে গুলিবর্ষণের কারণ জানাতে চেয়েছে। সীমান্তে বিজিবি সতর্ক অবস্থানে রয়েছে।

Adds Banner_2024

ফের বাংলাদেশে ঢুকে গুলি চালাল বিএসএফ

আপডেটের সময় : ০৮:০৯:১৬ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৪ মে ২০২৪

জনপদ ডেস্ক: কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ী সীমান্তে বাংলাদেশের অভ্যন্তরে প্রবেশ করে গুলিবর্ষণ করেছে বিএসএফ। এতে অল্পের জন্য বেঁচে যান গৃহবধূ শাকিলা আক্তার ইতি। এ বিষয়ে বিজিবির তীব্র প্রতিবাদের মুখে দুই দেশের পতাকা বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়েছে। গুলিবর্ষণের ঘটনায় ওই সীমান্তে বিজিবি টহল জোরদার করেছে।

রোববার সন্ধ্যা ৬টার দিকে উপজেলার বালাতারীর ধুলারকুটি গ্রামের আন্তর্জাতিক নং-৯৩১ পিলারের কাছে এ ঘটনা ঘটে। এ ব্যাপারে সোমবার সন্ধ্যা ৬টায় বিজিবি ও বিএসএফের পতাকা বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়েছে। সিসিটিভির ফুটেজ পর্যালোচনাপূর্বক গুলিবর্ষণের ঘটনা জানাতে চেয়েছে বিজিবি।

Trulli

সীমান্তবাসী শাহালম ও আব্দুল কুদ্দুস জানান, সীমান্ত সংলগ্ন বাংলাদেশের জমিতে কেটে নেওয়া ধান গাছের অবশিষ্ট খড় সংগ্রহের জন্য রোববার বিকাল সাড়ে ৫টার দিকে কয়েকজন সীমান্তবাসী নারী নো-ম্যান্সল্যান্ডে যান। এ সময় ভারতীয় নারায়ণগঞ্জ ক্যাম্পের টহলরত এক বিএসএফ সদস্য তাদের ধাওয়া করে। খড় সংগ্রহে যাওয়া নারীরা দৌড়ে বাংলাদেশের ভূখণ্ডে প্রবেশ করলে ওই বিএসএফ সদস্যও তাদের পিছু নিয়ে প্রায় ৩০ গজ বাংলাদেশের ভিতরে প্রবেশ করে।

একপর্যায়ে রাইফেল উঁচিয়ে ওই নারীদের লক্ষ্য করে এক রাউন্ড গুলি করে দ্রুত ভারতের অভ্যন্তরে চলে যায় বিএসএফ সদস্য। সেই গুলি লক্ষ্যভ্রষ্ট হয়ে সীমান্ত ঘেঁষা নুর আলম বাচ্চুর বাড়ির রান্নাঘরের চাল ফুটো হয়ে মেঝেতে ছিটকে পড়ে।

গুলির শব্দে আশপাশের এলাকা প্রকম্পিত হলে সীমান্তবাসী আতঙ্কিত হয়ে ছোটাছুটি করতে থাকেন। পরে নুর আলম বাচ্চুর পুত্রবধূ শাকিলা আক্তার ইতি রান্নাঘরের মেঝে থেকে এক রাউন্ড তাজা গুলি উদ্ধার করেন। রাত ১১টার দিকে পার্শ্ববর্তী গোরকমণ্ডল ক্যাম্পের বিজিবির সদস্যরা ঘটনাস্থল থেকে উদ্ধারকৃত গুলি জব্দ করে ক্যাম্পে নিয়ে যান।

নুর আলম বাচ্চু জানান, ওই সময় আমার পুত্রবধূ রান্নাঘরেই ছিল। ভাগ্যিস গুলিটা তাকে লাগেনি। মাঝে মধ্যেই বিএসএফ এভাবে বাংলাদেশে ঢুকে নিরীহ গ্রামবাসী ওপর অত্যাচার চালায়।

লালমনিরহাট ১৫ বিজিবি ব্যাটালিয়নের ভারপ্রাপ্ত অধিনায়ক মেজর আসিফ জানান, সোমবার সন্ধ্যা ৬টায় ওই সীমান্তে কোম্পানি কমান্ডার পর্যায়ে পতাকা বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়েছে। বৈঠকে বিজিবির পক্ষে নেতৃত্ব দেন লালমনিরহাট ১৫ বিজিবি ব্যাটালিয়নের অধীন শিমুলবাড়ী কোম্পানি কমান্ডার সুবেদার নরেশ চন্দ্র এবং বিএসএফের পক্ষে নেতৃত্ব দেন ৯০ বিএসএফ ব্যাটালিয়নের নারায়ণগঞ্জ কোম্পানি কমান্ডার ইন্সপেক্টর রমন সিং।

বৈঠকে সীমান্তে বিনা উস্কানিতে গুলিবর্ষণের কারণ জানতে চেয়ে বিজিবি কড়া প্রতিবাদ জানালে বিএসএফ সীমান্তের সিসিটিভির ফুটেজ পর্যালোচনাপূর্বক মঙ্গলবার আবারো পতাকা বৈঠকের মাধ্যমে গুলিবর্ষণের কারণ জানাতে চেয়েছে। সীমান্তে বিজিবি সতর্ক অবস্থানে রয়েছে।