রাজশাহী , সোমবার, ১৭ জুন ২০২৪, ৩ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
নোটিশ :
পবিত্র ইদুল আযহা উপলক্ষে আগামী ১৬ জুন ২০২৪ থেকে ২১ জুন ২০২৪ তারিখ পর্যন্ত বাংলার জনপদের সকল কার্যক্রম বন্ধ থাকবে। ২২ জুন ২০২৪ তারিখ থেকে পুনরায় সকল কার্যক্রম চালু থাকবে। ***ধন্যবাদ**

মাদক ব্যবসায়ীদের বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্স : মেয়র লিটন

  • আপডেটের সময় : ০৯:৩৩:৪৫ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ২৮ জানুয়ারী ২০১৯
  • ৭৩ টাইম ভিউ
Adds Banner_2024

রাজশাহী প্রতিনিধি: ‘একজন মাদকাসক্তই একটি পরিবারে ধ্বংসের জন্যে যথেষ্ট। জঙ্গিবাদ, মাদক ও দুর্নীতির বিরুদ্ধে বতর্মান সরকার জিরো টলারেন্স। রাজশাহীতেও যারা মাদক ব্যবসায়ী আছে, তাদেরকে শক্তভাবে আইনের আওতায় আনা হবে।’

আজ সকালে নগরীর সাহেব বাজার জিরো পয়েন্টে পুলিশ সেবা সপ্তাহ-২০১৯ এর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন এসব কথা বলেন।

Trulli

মহানগর আওয়ামী লীগ সভাপতি মেয়র খায়রুজ্জামান লিটন বলেন, গত ১০ বছরে পুলিশ বাহিনী অত্যন্ত গতিশীল হয়েছে। প্রশিক্ষণ, অস্ত্রশস্ত্র পেয়েছে, জঙ্গিবাদ-সন্ত্রাসবাদ মোকাবেলার জন্য উপযোগী প্রশিক্ষণ গ্রহণ করেছে পুলিশ। আইন শৃঙ্খলা বাহিনীর তৎপরতায় জঙ্গিবাদ অনেকটা নির্মূলের পথে।

সিটি কর্পোরেশনের আয়তন বাড়ানো হবে জানিয়ে মেয়র খায়রুজ্জামান লিটন বলেন, রাজশাহী মেট্রোপলিটন পুলিশের থানা বেড়ে বর্তমানে ১২টি দাঁড়িয়েছে। বর্ধিত থানাগুলো সিটি কর্পোরেশনের আওতায় আনা হবে। সিটি কর্পোরেশনের আয়তন বাড়ানোর মহাপরিকল্পনা গ্রহণ করা হয়েছে, প্রক্রিয়াও শুরু হয়েছে।

ইজিবাইক নিয়ন্ত্রণের উদ্যোগের ব্যাপারে মেয়র খায়রুজ্জামান লিটন বলেন, নগরীর ইজিবাইক অসহনীয় পর্যায়ে পৌছে গেছে। যানজন নিরসনে ইজিবাইকের দুইটি কালার করে জোর-বিজোড় দিন অথবা দিনে দুই শিফটে ভাগ করে দেয়া হবে। জিরোপয়েন্ট ও লক্ষীপুরের রাস্তাগুলো ওয়ান ওয়ে করা হবে।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের সভাপতিত্ব করেন আরএমপি’র পুলিশ কমিশনার এ কে এম হাফিজ আক্তার, বিপিএম। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন রাজশাহী কলেজের অধ্যক্ষ মুহাঃ হবিবুর রহমান, রাজশাহী জেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক আসাদুজ্জামান, রাজশাহী মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ডাবলু সরকার এবং আরএমপি’র অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার সুজায়েত ইসলাম।

এরপর সাহেব বাজার জিরো পয়েন্ট থেকে এক বর্ণাঢ্য র‌্যালী বের করা হয়। র‌্যালীটি জিরোপয়েন্ট থেকে আরম্ভ হয়ে নগরীর গুরুত্বপূর্ণ সড়ক প্রদক্ষিণ করে পুনরায় জিরোপয়েন্টে এসে শেষ হয়। র‌্যালীতে আরএমপি’র ১২টি থানার কমিউনিটি পুলিশিং এর সদস্যবৃন্দ, স্টুডেন্টস কমিউনিটি পুলিশিং এর সদস্যবৃন্দ, রোভার স্কাউটের সদস্যবৃন্দ, সুশীল সমাজের সদস্যবৃন্দ ও সাধারণ জনগণ বিভিন্ন ব্যানার ফেস্টুন নিয়ে অংশগ্রহণ করেন।

Adds Banner_2024

মাদক ব্যবসায়ীদের বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্স : মেয়র লিটন

আপডেটের সময় : ০৯:৩৩:৪৫ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ২৮ জানুয়ারী ২০১৯

রাজশাহী প্রতিনিধি: ‘একজন মাদকাসক্তই একটি পরিবারে ধ্বংসের জন্যে যথেষ্ট। জঙ্গিবাদ, মাদক ও দুর্নীতির বিরুদ্ধে বতর্মান সরকার জিরো টলারেন্স। রাজশাহীতেও যারা মাদক ব্যবসায়ী আছে, তাদেরকে শক্তভাবে আইনের আওতায় আনা হবে।’

আজ সকালে নগরীর সাহেব বাজার জিরো পয়েন্টে পুলিশ সেবা সপ্তাহ-২০১৯ এর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন এসব কথা বলেন।

Trulli

মহানগর আওয়ামী লীগ সভাপতি মেয়র খায়রুজ্জামান লিটন বলেন, গত ১০ বছরে পুলিশ বাহিনী অত্যন্ত গতিশীল হয়েছে। প্রশিক্ষণ, অস্ত্রশস্ত্র পেয়েছে, জঙ্গিবাদ-সন্ত্রাসবাদ মোকাবেলার জন্য উপযোগী প্রশিক্ষণ গ্রহণ করেছে পুলিশ। আইন শৃঙ্খলা বাহিনীর তৎপরতায় জঙ্গিবাদ অনেকটা নির্মূলের পথে।

সিটি কর্পোরেশনের আয়তন বাড়ানো হবে জানিয়ে মেয়র খায়রুজ্জামান লিটন বলেন, রাজশাহী মেট্রোপলিটন পুলিশের থানা বেড়ে বর্তমানে ১২টি দাঁড়িয়েছে। বর্ধিত থানাগুলো সিটি কর্পোরেশনের আওতায় আনা হবে। সিটি কর্পোরেশনের আয়তন বাড়ানোর মহাপরিকল্পনা গ্রহণ করা হয়েছে, প্রক্রিয়াও শুরু হয়েছে।

ইজিবাইক নিয়ন্ত্রণের উদ্যোগের ব্যাপারে মেয়র খায়রুজ্জামান লিটন বলেন, নগরীর ইজিবাইক অসহনীয় পর্যায়ে পৌছে গেছে। যানজন নিরসনে ইজিবাইকের দুইটি কালার করে জোর-বিজোড় দিন অথবা দিনে দুই শিফটে ভাগ করে দেয়া হবে। জিরোপয়েন্ট ও লক্ষীপুরের রাস্তাগুলো ওয়ান ওয়ে করা হবে।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের সভাপতিত্ব করেন আরএমপি’র পুলিশ কমিশনার এ কে এম হাফিজ আক্তার, বিপিএম। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন রাজশাহী কলেজের অধ্যক্ষ মুহাঃ হবিবুর রহমান, রাজশাহী জেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক আসাদুজ্জামান, রাজশাহী মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ডাবলু সরকার এবং আরএমপি’র অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার সুজায়েত ইসলাম।

এরপর সাহেব বাজার জিরো পয়েন্ট থেকে এক বর্ণাঢ্য র‌্যালী বের করা হয়। র‌্যালীটি জিরোপয়েন্ট থেকে আরম্ভ হয়ে নগরীর গুরুত্বপূর্ণ সড়ক প্রদক্ষিণ করে পুনরায় জিরোপয়েন্টে এসে শেষ হয়। র‌্যালীতে আরএমপি’র ১২টি থানার কমিউনিটি পুলিশিং এর সদস্যবৃন্দ, স্টুডেন্টস কমিউনিটি পুলিশিং এর সদস্যবৃন্দ, রোভার স্কাউটের সদস্যবৃন্দ, সুশীল সমাজের সদস্যবৃন্দ ও সাধারণ জনগণ বিভিন্ন ব্যানার ফেস্টুন নিয়ে অংশগ্রহণ করেন।