রাজশাহী , রবিবার, ১৪ জুলাই ২০২৪, ৩০ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
ব্রেকিং নিউজঃ
রাজাকারের নাতিরা সব পাবে, মুক্তিযোদ্ধার নাতিপুতিরা কিছুই পাবে না? আদালতের রায়ের বিরুদ্ধে দাঁড়ানোর অধিকার আমার নেই ফের ২৪ ঘণ্টার আল্টিমেটাম, দৃশ্যমান পদক্ষেপ চান কোটা আন্দোলনকারীরা আবাসন এবং হসপিটালিটি খাতে বিনিয়োগে আগ্রহী চীন : প্রধানমন্ত্রী ব্যারিকেড ভেঙে ফেলেছেন শিক্ষার্থীরা, যাচ্ছেন বঙ্গভবনের দিকে ট্রাম্পের ওপর হামলা নির্বাচনী প্রচারণায় কতটা প্রভাব ফেলবে? পূর্বঘোষিত গণপদযাত্রায় অংশ নিতে জড়ো হচ্ছেন শিক্ষার্থীরা ৭ অঞ্চলে সন্ধ্যার মধ্যে ঝড়ের আভাস কানে গুলিবিদ্ধ ট্রাম্প, বলছেন– যুক্তরাষ্ট্রে এমন হামলা অবিশ্বাস্য মামলা তুলে নিতে ২৪ ঘণ্টার আল্টিমেটাম কোটা আন্দোলনকারীদের কোটা আন্দোলন : গণপদযাত্রা ও রাষ্ট্রপতিকে স্মারকলিপি দেবেন শিক্ষার্থীরা ফুটবলের উন্নয়নে সহযোগিতা অব্যাহত রাখবে সরকার : প্রধানমন্ত্রী পেনশন স্কিম নিয়ে ভুল বোঝাবুঝি দূর হয়েছে : ওবায়দুল কাদের ওবায়দুল কাদেরের সঙ্গে বৈঠকে বসেছেন বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষকরা সরকার চাইলে কোটা পরিবর্তন করতে পারবে, হাইকোর্টের রায় প্রকাশ ব্যারিকেড ভেঙে ‘ভুয়া ভুয়া’ স্লোগান, উত্তাল শাহবাগ কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষার্থীদের সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষ আন্দোলনকে বেগবান করতে জনসংযোগ, সমন্বয় করে কর্মসূচির ঘোষণা আজ চলমান কোটা আন্দোলন নিয়ে ছাত্রলীগের সংবাদ সম্মেলন কোটা আন্দোলনকারীদের জন্য আদালতের দরজা সবসময় খোলা

মনোনয়ন বাতিল: বুধবার শেষ হচ্ছে আপিল, দুই দিনে ৩১৮ আবেদন

  • আপডেটের সময় : ০২:২২:৫৩ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ৪ ডিসেম্বর ২০১৮
  • ২২৯ টাইম ভিউ
Adds Banner_2024

ঢাকা প্রতিনিধি : মনোনয়নপত্র বাতিলের পর রিটার্নিং অফিসারদের সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে দ্বিতীয় দিনে (৪ নভেম্বর) মোট ২৩৪ জন আপিল করেছেন। এরআগে, প্রথম দিন সোমবার (৩ নভেম্বর) আপিল করেছিলেন ৮৪ জন। মনোনয়নপত্র বাতিল হওয়া ৭৮৬ জনের মধ্যে দুই দিনে আপিল করলেন ৩১৮ জন।

বুধবারও সংক্ষুব্ধরা আপিল করতে পারবেন। এরপর বৃহস্পতিবার থেকে তিনদিন যাবত প্রধান নির্বাচন কমিশনার কে এম নূরুল হুদার নেতৃত্বে পূর্ণাঙ্গ কমিশন আপিলের ওপর শুনানি করে সিদ্ধান্ত দেবে। সেখানে কেউ ক্ষুব্ধ হলে উচ্চ আদালতে যেতে পারবেন।

Trulli

আপিলের দ্বিতীয় দিনে আপিলকারীদের মধ্যে রয়েছেন পটুয়াখালী-১ আসনের জাতীয় পার্টির সদ্য বিদায়ীয় মহাসচিব রুহুল আমিন হাওলাদার, বরিশাল-২ আসনের জাপার প্রেসিডিয়াম সদস্য চিত্রনায়ক সোহেল রানা, নাটোর-২ আসনের বিএনপির প্রার্থী রুহুল কুদ্দুস তালুকদার দুলু, নেত্রকোনা-১ আসনের এমএ করিম আব্বাসী, মেজর (অব.) মনজুর কাদের, গণজাগরণ মঞ্চের ইমরান এইচ সরকার প্রমুখ। তবে, মঙ্গলবার পর্যন্ত খালেদা জিয়ার পক্ষে কেউ আপিলের আবেদন করেননি।

এদিকে, মঙ্গলবার প্রার্থীদের আপিল গ্রহণ করা আট বিভাগের ডেস্কগুলো পরিদর্শন করে ইসি কমিশনার মাহবুব তালুকদার সাংবাদিকদের বলেন, ‘আপিলকারীদের প্রতি পক্ষপাতমূলক আচরণ করা হবে না।’ তিনি বলেন, ‘আমরা যা কিছু করবো, তা আইনানুগভাবেই করতে হবে। কারও প্রতি পক্ষপাতিত্ব আমরা অবশ্যই দেখাবো না। প্রতিটি কেসেরই (আপিল) মেরিট আমরা দেখবো। আমি যেটা মনে করি, নির্বাচন কমিশন সব ব্যাপারেই একটা নিরপেক্ষ ভূমিকা পালন করবে।’

প্রসঙ্গত, একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে অংশ নিতে ৩ হাজার ৬৫ জন প্রার্থী মনোনয়নপত্র দাখিল করেন। এগুলো যাচাইয়ের পরে ৭৮৬ জনের প্রার্থিতা বাতিল করেন রিটার্নিং অফিসাররা। এর ফলে বৈধ প্রার্থীর সংখ্যা দাঁড়ায় ২ হাজার ২৭৯ জনে।

দেশের ৩৯টি নিবন্ধিত রাজনৈতিক দলের মনোনয়নপত্র জমা দেওয়া দুই হাজার ৫৬৭ জন প্রার্থীর সংখ্যার মধ্যে বাতিল হয় ৪০২ জনের মনোনয়ন। স্বতন্ত্র হিসেবে দাখিল করা ৪৯৮ জনের মধ্যে ৩৮৪ জনের মনোনয়ন বাতিল হওয়ার পর বৈধ প্রার্থী রয়েছে ১১৪ জন।

ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের ২৬৪টি আসনে ২৮১ জন প্রার্থীর মধ্যে নৌকার বৈধ প্রার্থী ২৭৮ জন, বাতিল ৩ জন। বিএনপির ২৯৫টি আসনে ধানের শীষে ৬৯৬ জন প্রার্থীর মধ্যে বৈধ প্রার্থীর সংখ্যা ৫৫৫ জন, বাতিল হয়েছে ১৪১ জন। জাতীয় পার্টি ২১০ আসনে ২৩৩ জন প্রার্থীর মধ্যে লাঙ্গল প্রতীকে বৈধ প্রার্থী ১৯৫ জন, বাতিল হয়েছে ৩৮ জন। ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ হাতপাখা প্রতীকে ২৯৯টি আসনে প্রার্থী দিলেও ২৮১ জনের প্রার্থিতা বৈধ হয়েছে।

অন্যান্য নিবন্ধিত দলের বৈধ প্রার্থীর মধ্যে রয়েছে, লিবারেল ডেমোক্রেটিক পার্টির (এলডিপি) ১২ জন, জাতীয় পার্টি-জেপি ১৩ জন, বাংলাদেশের সাম্যবাদী দল ২ জন, কৃষক শ্রমিক জনতা লীগ ৩২ জন, বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টি (সিপিবি) ৬৯ জন, গণতন্ত্রী পার্টি ৮ জন, বাংলাদেশ ন্যাশনাল আওয়ামী পার্টি ১১ জন, বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টি ৩২ জন, বিকল্পধারা বাংলাদেশ ২৪ জন, জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দল (জাসদ) ৩৯ জন, জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দল (জেএসডি) ৪৪ জন, জাকের পার্টি ৭৩ জন, বাংলাদেশের সমাজতান্ত্রিক দল (বাসদ) ৪৩ জন, বাংলাদেশ জাতীয় পার্টি (বিজেপি) ৬ জন, বাংলাদেশ তরিকত ফেডারেশন ২০ জন, বাংলাদেশ খেলাফত আন্দোলন ২২ জন, বাংলাদেশ

মুসলিম লীগ ৪০জন, ন্যাশনাল পিপলস পার্টি ৭৩ জন, জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশ ১৪ জন, গণফোরাম ৪৪ জন, গণফ্রন্টের ১৪ জন, প্রগতিশীল গণতান্ত্রিক দল (পিডিপি) ১৪টি, বাংলাদেশ ন্যাপ-৫ জন, বাংলাদেশ জাতীয় পার্টি-১১ জন, ইসলামিক ফ্রন্ট বাংলাদেশ ২৩ জন, বাংলাদেশ কল্যাণ পার্টি ৫ জন, ইসলামী ঐক্যজোট ২৩ জন, বাংলাদেশ খেলাফত মজলিম ৯ জন, বাংলাদেশ ইসলামী ফ্রন্ট ২১ জন, জাতীয় গণতান্ত্রিক পার্টি (জাগপা) ৪জন, বাংলাদেশের বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টি ২৭ জন, খেলাফত মজলিশ ১৩ জন, বাংলাদেশ মুসলিম লীগ (বিএমএল) ৬ জন, বাংলাদেশ সাংস্কৃতিক মুক্তিজোট ৩ জন ও বাংলাদেশ ন্যাশনালিস্ট ফ্রন্ট-বিএনএফ ৫৬ জন।

উল্লেখ্য, নির্বাচন কমিশনের তফসিল অনুযায়ী মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষ তারিখ ২৮ নভেম্বর, বাছাই ২ ডিসেম্বর, প্রত্যাহারের শেষ তারিখ ৯ ডিসেম্বর। ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে ৩০ ডিসেম্বর।

Adds Banner_2024
জনপ্রিয় পোস্ট
Adds Banner_2024

বঙ্গবন্ধু সৈনিক লীগ নেতার মায়ের মৃত্যুতে শোক

Adds Banner_2024

মনোনয়ন বাতিল: বুধবার শেষ হচ্ছে আপিল, দুই দিনে ৩১৮ আবেদন

আপডেটের সময় : ০২:২২:৫৩ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ৪ ডিসেম্বর ২০১৮

ঢাকা প্রতিনিধি : মনোনয়নপত্র বাতিলের পর রিটার্নিং অফিসারদের সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে দ্বিতীয় দিনে (৪ নভেম্বর) মোট ২৩৪ জন আপিল করেছেন। এরআগে, প্রথম দিন সোমবার (৩ নভেম্বর) আপিল করেছিলেন ৮৪ জন। মনোনয়নপত্র বাতিল হওয়া ৭৮৬ জনের মধ্যে দুই দিনে আপিল করলেন ৩১৮ জন।

বুধবারও সংক্ষুব্ধরা আপিল করতে পারবেন। এরপর বৃহস্পতিবার থেকে তিনদিন যাবত প্রধান নির্বাচন কমিশনার কে এম নূরুল হুদার নেতৃত্বে পূর্ণাঙ্গ কমিশন আপিলের ওপর শুনানি করে সিদ্ধান্ত দেবে। সেখানে কেউ ক্ষুব্ধ হলে উচ্চ আদালতে যেতে পারবেন।

Trulli

আপিলের দ্বিতীয় দিনে আপিলকারীদের মধ্যে রয়েছেন পটুয়াখালী-১ আসনের জাতীয় পার্টির সদ্য বিদায়ীয় মহাসচিব রুহুল আমিন হাওলাদার, বরিশাল-২ আসনের জাপার প্রেসিডিয়াম সদস্য চিত্রনায়ক সোহেল রানা, নাটোর-২ আসনের বিএনপির প্রার্থী রুহুল কুদ্দুস তালুকদার দুলু, নেত্রকোনা-১ আসনের এমএ করিম আব্বাসী, মেজর (অব.) মনজুর কাদের, গণজাগরণ মঞ্চের ইমরান এইচ সরকার প্রমুখ। তবে, মঙ্গলবার পর্যন্ত খালেদা জিয়ার পক্ষে কেউ আপিলের আবেদন করেননি।

এদিকে, মঙ্গলবার প্রার্থীদের আপিল গ্রহণ করা আট বিভাগের ডেস্কগুলো পরিদর্শন করে ইসি কমিশনার মাহবুব তালুকদার সাংবাদিকদের বলেন, ‘আপিলকারীদের প্রতি পক্ষপাতমূলক আচরণ করা হবে না।’ তিনি বলেন, ‘আমরা যা কিছু করবো, তা আইনানুগভাবেই করতে হবে। কারও প্রতি পক্ষপাতিত্ব আমরা অবশ্যই দেখাবো না। প্রতিটি কেসেরই (আপিল) মেরিট আমরা দেখবো। আমি যেটা মনে করি, নির্বাচন কমিশন সব ব্যাপারেই একটা নিরপেক্ষ ভূমিকা পালন করবে।’

প্রসঙ্গত, একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে অংশ নিতে ৩ হাজার ৬৫ জন প্রার্থী মনোনয়নপত্র দাখিল করেন। এগুলো যাচাইয়ের পরে ৭৮৬ জনের প্রার্থিতা বাতিল করেন রিটার্নিং অফিসাররা। এর ফলে বৈধ প্রার্থীর সংখ্যা দাঁড়ায় ২ হাজার ২৭৯ জনে।

দেশের ৩৯টি নিবন্ধিত রাজনৈতিক দলের মনোনয়নপত্র জমা দেওয়া দুই হাজার ৫৬৭ জন প্রার্থীর সংখ্যার মধ্যে বাতিল হয় ৪০২ জনের মনোনয়ন। স্বতন্ত্র হিসেবে দাখিল করা ৪৯৮ জনের মধ্যে ৩৮৪ জনের মনোনয়ন বাতিল হওয়ার পর বৈধ প্রার্থী রয়েছে ১১৪ জন।

ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের ২৬৪টি আসনে ২৮১ জন প্রার্থীর মধ্যে নৌকার বৈধ প্রার্থী ২৭৮ জন, বাতিল ৩ জন। বিএনপির ২৯৫টি আসনে ধানের শীষে ৬৯৬ জন প্রার্থীর মধ্যে বৈধ প্রার্থীর সংখ্যা ৫৫৫ জন, বাতিল হয়েছে ১৪১ জন। জাতীয় পার্টি ২১০ আসনে ২৩৩ জন প্রার্থীর মধ্যে লাঙ্গল প্রতীকে বৈধ প্রার্থী ১৯৫ জন, বাতিল হয়েছে ৩৮ জন। ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ হাতপাখা প্রতীকে ২৯৯টি আসনে প্রার্থী দিলেও ২৮১ জনের প্রার্থিতা বৈধ হয়েছে।

অন্যান্য নিবন্ধিত দলের বৈধ প্রার্থীর মধ্যে রয়েছে, লিবারেল ডেমোক্রেটিক পার্টির (এলডিপি) ১২ জন, জাতীয় পার্টি-জেপি ১৩ জন, বাংলাদেশের সাম্যবাদী দল ২ জন, কৃষক শ্রমিক জনতা লীগ ৩২ জন, বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টি (সিপিবি) ৬৯ জন, গণতন্ত্রী পার্টি ৮ জন, বাংলাদেশ ন্যাশনাল আওয়ামী পার্টি ১১ জন, বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টি ৩২ জন, বিকল্পধারা বাংলাদেশ ২৪ জন, জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দল (জাসদ) ৩৯ জন, জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দল (জেএসডি) ৪৪ জন, জাকের পার্টি ৭৩ জন, বাংলাদেশের সমাজতান্ত্রিক দল (বাসদ) ৪৩ জন, বাংলাদেশ জাতীয় পার্টি (বিজেপি) ৬ জন, বাংলাদেশ তরিকত ফেডারেশন ২০ জন, বাংলাদেশ খেলাফত আন্দোলন ২২ জন, বাংলাদেশ

মুসলিম লীগ ৪০জন, ন্যাশনাল পিপলস পার্টি ৭৩ জন, জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশ ১৪ জন, গণফোরাম ৪৪ জন, গণফ্রন্টের ১৪ জন, প্রগতিশীল গণতান্ত্রিক দল (পিডিপি) ১৪টি, বাংলাদেশ ন্যাপ-৫ জন, বাংলাদেশ জাতীয় পার্টি-১১ জন, ইসলামিক ফ্রন্ট বাংলাদেশ ২৩ জন, বাংলাদেশ কল্যাণ পার্টি ৫ জন, ইসলামী ঐক্যজোট ২৩ জন, বাংলাদেশ খেলাফত মজলিম ৯ জন, বাংলাদেশ ইসলামী ফ্রন্ট ২১ জন, জাতীয় গণতান্ত্রিক পার্টি (জাগপা) ৪জন, বাংলাদেশের বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টি ২৭ জন, খেলাফত মজলিশ ১৩ জন, বাংলাদেশ মুসলিম লীগ (বিএমএল) ৬ জন, বাংলাদেশ সাংস্কৃতিক মুক্তিজোট ৩ জন ও বাংলাদেশ ন্যাশনালিস্ট ফ্রন্ট-বিএনএফ ৫৬ জন।

উল্লেখ্য, নির্বাচন কমিশনের তফসিল অনুযায়ী মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষ তারিখ ২৮ নভেম্বর, বাছাই ২ ডিসেম্বর, প্রত্যাহারের শেষ তারিখ ৯ ডিসেম্বর। ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে ৩০ ডিসেম্বর।