রাজশাহী , বুধবার, ১৭ জুলাই ২০২৪, ২ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
ব্রেকিং নিউজঃ
দাবি না মানায় রাবি উপাচার্যকে অবরুদ্ধ করে রেখেছেন শিক্ষার্থীরা ছাত্রশিবির-ছাত্রদল এবং বহিরাগতরা ঢাবির হলে তাণ্ডব চালিয়েছে: মুক্তিযুদ্ধ মন্ত্রী হল ছাড়বেন না রাবি শিক্ষার্থীরা, তিন দাবিতে বিক্ষোভ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ ঘোষণা ঢাবির সব হল সাধারণ শিক্ষার্থীদের দখলে এবার সিটি কর্পোরেশন এলাকায় প্রাথমিক বিদ্যালয় বন্ধ ঘোষণা হামলার ভয়ে হল ছাড়ছেন রাবি শিক্ষার্থীরা কোটা সংস্কার আন্দোলন: বৃহস্পতিবারের এইচএসসি পরীক্ষা স্থগিত দেশের সব স্কুল-কলেজ বন্ধ ঘোষণা রাবির বঙ্গবন্ধু হলে অগ্নিসংযোগ, শহরে খণ্ড খণ্ড বিক্ষোভ লাঠিসোঁটা নিয়ে রাবিতে বিক্ষোভ, বঙ্গবন্ধু হলে ভাঙচুর, বাইকে আগুন রাজশাহীতে ৪ প্লাটুন বিজিবি মোতায়েন রাবিতে হলে ঢুকে মোটরসাইকেলে আগুন, ব্যাপক ভাঙচুর চট্টগ্রামে আন্দোলনকারীদের সঙ্গে ছাত্রলীগের সংঘর্ষ ঢাকা, চট্টগ্রাম, বগুড়া ও রাজশাহীতে বিজিবি মোতায়েন যুক্তরাষ্ট্রের বক্তব্যের প্রতিবাদ জানাল বাংলাদেশ বীর মুক্তিযোদ্ধাদের সর্বোচ্চ সম্মান দিতে হবে : প্রধানমন্ত্রী কোটা আন্দোলনকারীদের নতুন কর্মসূচি ঘোষণা এবার ঢামেকে আহত আন্দোলনকারীদের ওপর ছাত্রলীগের হামলা হলে ফেরার অনুরোধ প্রত্যাখ্যান আন্দোলনকারীদের

দণ্ডিত ব্যক্তিদের নির্বাচনে অংশ গ্রহণ নিয়ে হাইকোর্টের দুই বেঞ্চে ভিন্নমত

  • আপডেটের সময় : ০৬:০৪:৩৬ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ৩০ নভেম্বর ২০১৮
  • ১০৩ টাইম ভিউ
Adds Banner_2024

ঢাকা প্রতিনিধি: দণ্ডিত ব্যক্তিদের নির্বাচনে অংশ গ্রহণ নিয়ে ভিন্ন ভিন্ন মত দিয়েছেন হাইকোর্টের আলাদা দুটি বেঞ্চ। দুই বছরের বেশি দণ্ড হলেই নির্বাচনে অযোগ্য হবে মঙ্গলবার হাইকোর্টের একটি দ্বৈত বেঞ্চ এ আদেশ দেন।

এদিকে, গতকাল বৃহস্পতিবার হাইকোর্টের একক বেঞ্চ বিপরীত আদেশে বলেন, দণ্ড স্থগিত বা আপিল বিচারাধীন থাকলেই তিনি নির্বাচনের যোগ্য বলে বিবেচিত হবেন। এ মতকে সাংঘর্ষিক উল্লেখ করে আদেশের বিরুদ্ধে আপিল করার কথা জানিয়েছেন অ্যাটর্নি জেনারেল।

Trulli

সংবিধানের ৬৬ অনুচ্ছেদের ২এর মতে নৈতিক স্খলনের মতো ফৌজদারি অপরাধে দুই বছরের বেশি দণ্ড হলেই তিনি তিনি নির্বাচনের অযোগ্য হবেন। এমনকি খালাসের পরও নির্বাচনের জন্য অপেক্ষা করতে হবে আরো ৫ বছর।

সংবিধানের এ বিধান মতে, দুই বছরের বেশি দণ্ডপ্রাপ্তরা নির্বাচনের অযোগ্য বলে মঙ্গলবার আদেশ দিয়েছিলেন উচ্চ আদালতে একটি দ্বৈত বেঞ্চ। এমনকি আপিল বিচারাধীন দেখিয়েও নির্বাচনে অংশ নেয়ার সুযোগ নেই বলেও আদেশে উল্লেখ করেন আদালত। দণ্ড বা স্থগিতের কোনো বিধান নেই বলেও জানানো হয়। হাইকোর্টের এ আদেশ বহাল থাকে আপিল বিভাগেও।

কিন্তু দণ্ড স্থগিত চেয়ে বিএনপির এক মনোনীত প্রার্থীর আবেদনে ভিন্নমত দিয়েছেন উচ্চ আদালতের একক একটি বেঞ্চ। দণ্ড স্থগিত করে আদালত বলেছেন, দণ্ডের বিরুদ্ধে আপিল বিচারাধীন থাকলেই তিনি নির্বাচনের যোগ্য বলে বিবেচিত হবেন।

Adds Banner_2024
Adds Banner_2024

দাবি না মানায় রাবি উপাচার্যকে অবরুদ্ধ করে রেখেছেন শিক্ষার্থীরা

Adds Banner_2024

দণ্ডিত ব্যক্তিদের নির্বাচনে অংশ গ্রহণ নিয়ে হাইকোর্টের দুই বেঞ্চে ভিন্নমত

আপডেটের সময় : ০৬:০৪:৩৬ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ৩০ নভেম্বর ২০১৮

ঢাকা প্রতিনিধি: দণ্ডিত ব্যক্তিদের নির্বাচনে অংশ গ্রহণ নিয়ে ভিন্ন ভিন্ন মত দিয়েছেন হাইকোর্টের আলাদা দুটি বেঞ্চ। দুই বছরের বেশি দণ্ড হলেই নির্বাচনে অযোগ্য হবে মঙ্গলবার হাইকোর্টের একটি দ্বৈত বেঞ্চ এ আদেশ দেন।

এদিকে, গতকাল বৃহস্পতিবার হাইকোর্টের একক বেঞ্চ বিপরীত আদেশে বলেন, দণ্ড স্থগিত বা আপিল বিচারাধীন থাকলেই তিনি নির্বাচনের যোগ্য বলে বিবেচিত হবেন। এ মতকে সাংঘর্ষিক উল্লেখ করে আদেশের বিরুদ্ধে আপিল করার কথা জানিয়েছেন অ্যাটর্নি জেনারেল।

Trulli

সংবিধানের ৬৬ অনুচ্ছেদের ২এর মতে নৈতিক স্খলনের মতো ফৌজদারি অপরাধে দুই বছরের বেশি দণ্ড হলেই তিনি তিনি নির্বাচনের অযোগ্য হবেন। এমনকি খালাসের পরও নির্বাচনের জন্য অপেক্ষা করতে হবে আরো ৫ বছর।

সংবিধানের এ বিধান মতে, দুই বছরের বেশি দণ্ডপ্রাপ্তরা নির্বাচনের অযোগ্য বলে মঙ্গলবার আদেশ দিয়েছিলেন উচ্চ আদালতে একটি দ্বৈত বেঞ্চ। এমনকি আপিল বিচারাধীন দেখিয়েও নির্বাচনে অংশ নেয়ার সুযোগ নেই বলেও আদেশে উল্লেখ করেন আদালত। দণ্ড বা স্থগিতের কোনো বিধান নেই বলেও জানানো হয়। হাইকোর্টের এ আদেশ বহাল থাকে আপিল বিভাগেও।

কিন্তু দণ্ড স্থগিত চেয়ে বিএনপির এক মনোনীত প্রার্থীর আবেদনে ভিন্নমত দিয়েছেন উচ্চ আদালতের একক একটি বেঞ্চ। দণ্ড স্থগিত করে আদালত বলেছেন, দণ্ডের বিরুদ্ধে আপিল বিচারাধীন থাকলেই তিনি নির্বাচনের যোগ্য বলে বিবেচিত হবেন।