রাজশাহী , রবিবার, ১৪ জুলাই ২০২৪, ৩০ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
ব্রেকিং নিউজঃ
রাজাকারের নাতিরা সব পাবে, মুক্তিযোদ্ধার নাতিপুতিরা কিছুই পাবে না? আদালতের রায়ের বিরুদ্ধে দাঁড়ানোর অধিকার আমার নেই ফের ২৪ ঘণ্টার আল্টিমেটাম, দৃশ্যমান পদক্ষেপ চান কোটা আন্দোলনকারীরা আবাসন এবং হসপিটালিটি খাতে বিনিয়োগে আগ্রহী চীন : প্রধানমন্ত্রী ব্যারিকেড ভেঙে ফেলেছেন শিক্ষার্থীরা, যাচ্ছেন বঙ্গভবনের দিকে ট্রাম্পের ওপর হামলা নির্বাচনী প্রচারণায় কতটা প্রভাব ফেলবে? পূর্বঘোষিত গণপদযাত্রায় অংশ নিতে জড়ো হচ্ছেন শিক্ষার্থীরা ৭ অঞ্চলে সন্ধ্যার মধ্যে ঝড়ের আভাস কানে গুলিবিদ্ধ ট্রাম্প, বলছেন– যুক্তরাষ্ট্রে এমন হামলা অবিশ্বাস্য মামলা তুলে নিতে ২৪ ঘণ্টার আল্টিমেটাম কোটা আন্দোলনকারীদের কোটা আন্দোলন : গণপদযাত্রা ও রাষ্ট্রপতিকে স্মারকলিপি দেবেন শিক্ষার্থীরা ফুটবলের উন্নয়নে সহযোগিতা অব্যাহত রাখবে সরকার : প্রধানমন্ত্রী পেনশন স্কিম নিয়ে ভুল বোঝাবুঝি দূর হয়েছে : ওবায়দুল কাদের ওবায়দুল কাদেরের সঙ্গে বৈঠকে বসেছেন বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষকরা সরকার চাইলে কোটা পরিবর্তন করতে পারবে, হাইকোর্টের রায় প্রকাশ ব্যারিকেড ভেঙে ‘ভুয়া ভুয়া’ স্লোগান, উত্তাল শাহবাগ কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষার্থীদের সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষ আন্দোলনকে বেগবান করতে জনসংযোগ, সমন্বয় করে কর্মসূচির ঘোষণা আজ চলমান কোটা আন্দোলন নিয়ে ছাত্রলীগের সংবাদ সম্মেলন কোটা আন্দোলনকারীদের জন্য আদালতের দরজা সবসময় খোলা

নিরাপত্তা সংলাপ : ঢাকায় আসছেন সাত মার্কিন কর্মকর্তা

  • আপডেটের সময় : ০৫:৫৯:৫১ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ২৪ এপ্রিল ২০১৯
  • ৭২ টাইম ভিউ
Adds Banner_2024

ঢাকা প্রতিনিধি: নিরাপত্তা বিষয়ে সপ্তম সংলাপে অংশ নিতে ঢাকায় আসছেন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সাত কর্মকর্তা। আগামী ২ মে তারা বাংলাদেশ সরকারের উচ্চপর্যায়ের প্রতিনিধিদের সঙ্গে আলোচনায় বসবেন।

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানিয়েছে, সংলাপে নেতৃত্ব দিতে পারেন যুক্তরাষ্ট্রের পলিটিক্যাল অ্যান্ড মিলিটারি ব্যুরোর ভারপ্রাপ্ত উপ-সহকারী মন্ত্রী মাইকেল মিলার। তার সঙ্গে থাকবেন স্টেট ডিপার্টমেন্টের সংশ্লিষ্ট ব্যুরো ও বিভাগের ছয়জন প্রতিনিধি। ঢাকায় নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত আর্ল রবার্ট মিলার এবং তার টিমের অন্তত ছয় সদস্য এতে অংশ নেবেন। এ ছাড়া ওয়াশিংটনে বাংলাদেশ দূতাবাসের জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তারাও থাকবেন।

Trulli

সপ্তম এই নিরাপত্তা সংলাপে সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদ দমন, সামরিক সহযোগিতা, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা, সাইবার সিকিউরিটি, মেরিটাইম সিকিউরিটি, জাতিসংঘে শান্তিরক্ষা কার্যক্রম, আঞ্চলিক সহযোগিতা, প্রথা ও অপ্রথাগত নিরাপত্তাসহ বিভিন্ন বিষয়ে আলোচনা হতে পারে।

উল্লেখ্য, নিরাপত্তা সংক্রান্ত যাবতীয় বিষয়ে আলোচনার জন্য বাংলাদেশ ও যুক্তরাষ্ট্রের মধ্যে একটি কাঠামোবদ্ধ ফোরাম রয়েছে। এর আওতায় ২০১২ সাল থেকে প্রতিবছর অল্টারনেটিভ ভেন্যুতে আলোচনা হয়ে আসছে। ফোরামের সর্বশেষ তথা ষষ্ঠ সংলাপ হয়েছিল ২০১৭ সালের অক্টোবরে ওয়াশিংটনে। এবারের তথা সপ্তম ভেন্যু ঢাকা।নিরাপত্তা বিষয়ে সপ্তম সংলাপে অংশ নিতে ঢাকায় আসছেন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সাত কর্মকর্তা। আগামী ২ মে তারা বাংলাদেশ সরকারের উচ্চপর্যায়ের প্রতিনিধিদের সঙ্গে আলোচনায় বসবেন।

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানিয়েছে, সংলাপে নেতৃত্ব দিতে পারেন যুক্তরাষ্ট্রের পলিটিক্যাল অ্যান্ড মিলিটারি ব্যুরোর ভারপ্রাপ্ত উপ-সহকারী মন্ত্রী মাইকেল মিলার। তার সঙ্গে থাকবেন স্টেট ডিপার্টমেন্টের সংশ্লিষ্ট ব্যুরো ও বিভাগের ছয়জন প্রতিনিধি। ঢাকায় নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত আর্ল রবার্ট মিলার এবং তার টিমের অন্তত ছয় সদস্য এতে অংশ নেবেন। এ ছাড়া ওয়াশিংটনে বাংলাদেশ দূতাবাসের জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তারাও থাকবেন।

সপ্তম এই নিরাপত্তা সংলাপে সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদ দমন, সামরিক সহযোগিতা, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা, সাইবার সিকিউরিটি, মেরিটাইম সিকিউরিটি, জাতিসংঘে শান্তিরক্ষা কার্যক্রম, আঞ্চলিক সহযোগিতা, প্রথা ও অপ্রথাগত নিরাপত্তাসহ বিভিন্ন বিষয়ে আলোচনা হতে পারে।

উল্লেখ্য, নিরাপত্তা সংক্রান্ত যাবতীয় বিষয়ে আলোচনার জন্য বাংলাদেশ ও যুক্তরাষ্ট্রের মধ্যে একটি কাঠামোবদ্ধ ফোরাম রয়েছে। এর আওতায় ২০১২ সাল থেকে প্রতিবছর অল্টারনেটিভ ভেন্যুতে আলোচনা হয়ে আসছে। ফোরামের সর্বশেষ তথা ষষ্ঠ সংলাপ হয়েছিল ২০১৭ সালের অক্টোবরে ওয়াশিংটনে। এবারের তথা সপ্তম ভেন্যু ঢাকা।নিরাপত্তা বিষয়ে সপ্তম সংলাপে অংশ নিতে ঢাকায় আসছেন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সাত কর্মকর্তা। আগামী ২ মে তারা বাংলাদেশ সরকারের উচ্চপর্যায়ের প্রতিনিধিদের সঙ্গে আলোচনায় বসবেন।

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানিয়েছে, সংলাপে নেতৃত্ব দিতে পারেন যুক্তরাষ্ট্রের পলিটিক্যাল অ্যান্ড মিলিটারি ব্যুরোর ভারপ্রাপ্ত উপ-সহকারী মন্ত্রী মাইকেল মিলার। তার সঙ্গে থাকবেন স্টেট ডিপার্টমেন্টের সংশ্লিষ্ট ব্যুরো ও বিভাগের ছয়জন প্রতিনিধি। ঢাকায় নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত আর্ল রবার্ট মিলার এবং তার টিমের অন্তত ছয় সদস্য এতে অংশ নেবেন। এ ছাড়া ওয়াশিংটনে বাংলাদেশ দূতাবাসের জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তারাও থাকবেন।

সপ্তম এই নিরাপত্তা সংলাপে সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদ দমন, সামরিক সহযোগিতা, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা, সাইবার সিকিউরিটি, মেরিটাইম সিকিউরিটি, জাতিসংঘে শান্তিরক্ষা কার্যক্রম, আঞ্চলিক সহযোগিতা, প্রথা ও অপ্রথাগত নিরাপত্তাসহ বিভিন্ন বিষয়ে আলোচনা হতে পারে।

উল্লেখ্য, নিরাপত্তা সংক্রান্ত যাবতীয় বিষয়ে আলোচনার জন্য বাংলাদেশ ও যুক্তরাষ্ট্রের মধ্যে একটি কাঠামোবদ্ধ ফোরাম রয়েছে। এর আওতায় ২০১২ সাল থেকে প্রতিবছর অল্টারনেটিভ ভেন্যুতে আলোচনা হয়ে আসছে। ফোরামের সর্বশেষ তথা ষষ্ঠ সংলাপ হয়েছিল ২০১৭ সালের অক্টোবরে ওয়াশিংটনে। এবারের তথা সপ্তম ভেন্যু ঢাকা।

Adds Banner_2024
জনপ্রিয় পোস্ট
Adds Banner_2024

বঙ্গবন্ধু সৈনিক লীগ নেতার মায়ের মৃত্যুতে শোক

Adds Banner_2024

নিরাপত্তা সংলাপ : ঢাকায় আসছেন সাত মার্কিন কর্মকর্তা

আপডেটের সময় : ০৫:৫৯:৫১ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ২৪ এপ্রিল ২০১৯

ঢাকা প্রতিনিধি: নিরাপত্তা বিষয়ে সপ্তম সংলাপে অংশ নিতে ঢাকায় আসছেন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সাত কর্মকর্তা। আগামী ২ মে তারা বাংলাদেশ সরকারের উচ্চপর্যায়ের প্রতিনিধিদের সঙ্গে আলোচনায় বসবেন।

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানিয়েছে, সংলাপে নেতৃত্ব দিতে পারেন যুক্তরাষ্ট্রের পলিটিক্যাল অ্যান্ড মিলিটারি ব্যুরোর ভারপ্রাপ্ত উপ-সহকারী মন্ত্রী মাইকেল মিলার। তার সঙ্গে থাকবেন স্টেট ডিপার্টমেন্টের সংশ্লিষ্ট ব্যুরো ও বিভাগের ছয়জন প্রতিনিধি। ঢাকায় নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত আর্ল রবার্ট মিলার এবং তার টিমের অন্তত ছয় সদস্য এতে অংশ নেবেন। এ ছাড়া ওয়াশিংটনে বাংলাদেশ দূতাবাসের জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তারাও থাকবেন।

Trulli

সপ্তম এই নিরাপত্তা সংলাপে সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদ দমন, সামরিক সহযোগিতা, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা, সাইবার সিকিউরিটি, মেরিটাইম সিকিউরিটি, জাতিসংঘে শান্তিরক্ষা কার্যক্রম, আঞ্চলিক সহযোগিতা, প্রথা ও অপ্রথাগত নিরাপত্তাসহ বিভিন্ন বিষয়ে আলোচনা হতে পারে।

উল্লেখ্য, নিরাপত্তা সংক্রান্ত যাবতীয় বিষয়ে আলোচনার জন্য বাংলাদেশ ও যুক্তরাষ্ট্রের মধ্যে একটি কাঠামোবদ্ধ ফোরাম রয়েছে। এর আওতায় ২০১২ সাল থেকে প্রতিবছর অল্টারনেটিভ ভেন্যুতে আলোচনা হয়ে আসছে। ফোরামের সর্বশেষ তথা ষষ্ঠ সংলাপ হয়েছিল ২০১৭ সালের অক্টোবরে ওয়াশিংটনে। এবারের তথা সপ্তম ভেন্যু ঢাকা।নিরাপত্তা বিষয়ে সপ্তম সংলাপে অংশ নিতে ঢাকায় আসছেন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সাত কর্মকর্তা। আগামী ২ মে তারা বাংলাদেশ সরকারের উচ্চপর্যায়ের প্রতিনিধিদের সঙ্গে আলোচনায় বসবেন।

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানিয়েছে, সংলাপে নেতৃত্ব দিতে পারেন যুক্তরাষ্ট্রের পলিটিক্যাল অ্যান্ড মিলিটারি ব্যুরোর ভারপ্রাপ্ত উপ-সহকারী মন্ত্রী মাইকেল মিলার। তার সঙ্গে থাকবেন স্টেট ডিপার্টমেন্টের সংশ্লিষ্ট ব্যুরো ও বিভাগের ছয়জন প্রতিনিধি। ঢাকায় নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত আর্ল রবার্ট মিলার এবং তার টিমের অন্তত ছয় সদস্য এতে অংশ নেবেন। এ ছাড়া ওয়াশিংটনে বাংলাদেশ দূতাবাসের জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তারাও থাকবেন।

সপ্তম এই নিরাপত্তা সংলাপে সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদ দমন, সামরিক সহযোগিতা, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা, সাইবার সিকিউরিটি, মেরিটাইম সিকিউরিটি, জাতিসংঘে শান্তিরক্ষা কার্যক্রম, আঞ্চলিক সহযোগিতা, প্রথা ও অপ্রথাগত নিরাপত্তাসহ বিভিন্ন বিষয়ে আলোচনা হতে পারে।

উল্লেখ্য, নিরাপত্তা সংক্রান্ত যাবতীয় বিষয়ে আলোচনার জন্য বাংলাদেশ ও যুক্তরাষ্ট্রের মধ্যে একটি কাঠামোবদ্ধ ফোরাম রয়েছে। এর আওতায় ২০১২ সাল থেকে প্রতিবছর অল্টারনেটিভ ভেন্যুতে আলোচনা হয়ে আসছে। ফোরামের সর্বশেষ তথা ষষ্ঠ সংলাপ হয়েছিল ২০১৭ সালের অক্টোবরে ওয়াশিংটনে। এবারের তথা সপ্তম ভেন্যু ঢাকা।নিরাপত্তা বিষয়ে সপ্তম সংলাপে অংশ নিতে ঢাকায় আসছেন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সাত কর্মকর্তা। আগামী ২ মে তারা বাংলাদেশ সরকারের উচ্চপর্যায়ের প্রতিনিধিদের সঙ্গে আলোচনায় বসবেন।

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানিয়েছে, সংলাপে নেতৃত্ব দিতে পারেন যুক্তরাষ্ট্রের পলিটিক্যাল অ্যান্ড মিলিটারি ব্যুরোর ভারপ্রাপ্ত উপ-সহকারী মন্ত্রী মাইকেল মিলার। তার সঙ্গে থাকবেন স্টেট ডিপার্টমেন্টের সংশ্লিষ্ট ব্যুরো ও বিভাগের ছয়জন প্রতিনিধি। ঢাকায় নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত আর্ল রবার্ট মিলার এবং তার টিমের অন্তত ছয় সদস্য এতে অংশ নেবেন। এ ছাড়া ওয়াশিংটনে বাংলাদেশ দূতাবাসের জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তারাও থাকবেন।

সপ্তম এই নিরাপত্তা সংলাপে সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদ দমন, সামরিক সহযোগিতা, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা, সাইবার সিকিউরিটি, মেরিটাইম সিকিউরিটি, জাতিসংঘে শান্তিরক্ষা কার্যক্রম, আঞ্চলিক সহযোগিতা, প্রথা ও অপ্রথাগত নিরাপত্তাসহ বিভিন্ন বিষয়ে আলোচনা হতে পারে।

উল্লেখ্য, নিরাপত্তা সংক্রান্ত যাবতীয় বিষয়ে আলোচনার জন্য বাংলাদেশ ও যুক্তরাষ্ট্রের মধ্যে একটি কাঠামোবদ্ধ ফোরাম রয়েছে। এর আওতায় ২০১২ সাল থেকে প্রতিবছর অল্টারনেটিভ ভেন্যুতে আলোচনা হয়ে আসছে। ফোরামের সর্বশেষ তথা ষষ্ঠ সংলাপ হয়েছিল ২০১৭ সালের অক্টোবরে ওয়াশিংটনে। এবারের তথা সপ্তম ভেন্যু ঢাকা।